লঞ্চে সন্তান প্রসব: একসঙ্গে দুই সুখবর পেলেন বাবা-মা

ভোলা-ঢাকা নৌ রুটে দ্রুত চলাচলগামী যাত্রীবাহী অ্যাডভেঞ্চার-৫ নামে একটি ওয়াটার ওয়েজে রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে নাভিল নামে এক শি’শু জন্মগ্রহণ করে।

ওই ওয়াটার ওয়েজে সন্তান জন্ম দেয়া শি’শুটির বাবা-মাকে সুখবর দিয়েছে অ্যাডভেঞ্চার কর্তৃপক্ষ।

শি’শুটি জন্মের পরপরই অ্যাডভেঞ্চার কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দেয়, এই শি’শুর বাবা-মাসহ পুরো পরিবার ঢাকা-ভোলা রুটে যতদিন যাতায়াত করবেন ততদিন তাদেরকে কোনো ভাড়া দিতে হবে না।

শুধু তাই নয়, তাদের জন্য ভিআইপি সিট ফ্রি দেয়া হবে। অ্যাডভেঞ্চার-৫ এর ভোলার ম্যানেজার মো. এনামুল হক সবুজ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ওই শি’শুর মামা মো. আক্তার হোসেন জানান, তার বোন আসমা’র স্বামীর বাড়ি বরগুনা জে’লায়। তার দুলাভাই মো. মোশারফ হোসেন ঢাকার মিরপুর-১২ নম্বরে রাজমিস্ত্রির কাজ করেন। এ জন্য স্ত্রী'’’ ও এক সন্তান নিয়ে সেখানে থাকেন তিনি। কিছুদিন আগে ঢাকায় তার বোনকে ডা`ক্তার দেখান। পরীক্ষা করে আগামী ২ ফেব্রুয়ারি সন্তান প্রসবের সম্ভাব্য দিন ধার্য করেন ডা`ক্তার।

কিন্তু ঢাকায় তার বোন আসমাকে দেখাশোনা করার কেউ নেই বলে ভোলা সদরের বাপ্তা ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের চাচড়া গ্রামের বাবার বাড়ির উদ্দেশ্যে রোববার অ্যাডভেঞ্চার-৫ এ করে রওনা হয়।

তিনি আরও জানান, দুপুর আড়াইটার দিকে ঢাকা থেকে ভোলার ইলিশার উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করে অ্যাডভেঞ্চার-৫। পরে বিকেল ৪টার দিকে তার বোনের প্রসব ব্যাথা শুরু হয়।

এ সময় অ্যাডভেঞ্চার-৫ এ চলাচলকারী সাধারণ যাত্রীদের সহযোগিতায় সন্ধা সাড়ে ৭টার দিকে ভোলার ইলিশা ঘাটে আসলেই শি’শুটি ভূমিষ্ঠ হয়।

আক্তার হোসেন জানান, অ্যাডভেঞ্চারের কর্মক’র্তা ও যাত্রীদের অনেক সহযোগিতায় এটা সম্ভব হয়েছে। এ কারণে অ্যাডভেঞ্চারের সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি। সেই সঙ্গে অ্যাডভেঞ্চার-৫ কর্তৃপক্ষ যে ঘোষণা দিয়েছে তার জন্যও ধন্যবাদ জানান আক্তার।